Thursday , August 11 2022
প্রচ্ছদ / জাতীয় / এমপিওভুক্তি চায় আইসিটি শিক্ষকরা

এমপিওভুক্তি চায় আইসিটি শিক্ষকরা

এমপিওভুক্তির দাবিতে অবস্থান ধর্মঘট শুরু করেছেন বেসরকারি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের কম্পিউটার বিভাগের শিক্ষকরা।

রোববার সকাল থেকে জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে ‘বাংলাদেশ এমপিও বঞ্চিত শিক্ষক সংগঠনের’ ব্যানারে এ কর্মসূচি শুরু করা হয়।

অবস্থান ধর্মঘট পালনরত শিক্ষরা জানান, ১৯৯৬ সালে আওয়ামী লীগ সরকার ক্ষমতায় এসে মাধ্যমিক স্তরে কম্পিউটার শিক্ষা চালুর পর প্রতিটি বিদ্যালয়ে এ বিষয়ে একজন শিক্ষক নিয়োগ দেয়া হয়। কিন্তু ২০১১ সালের ১৩ নভেম্বর এক পরিপত্রের মাধ্যমে অনুমোদনপ্রাপ্ত প্যার্টানভুক্ত বিষয় আইসিটি শিক্ষকদের এমপিও স্থগিত করা হয়। ২০১২ সালে ষষ্ঠ থেকে দ্বাদশ শ্রেণি পর্যন্ত ‘তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি’ বিষয় বাধ্যতামূলক করে সরকার।

তারা জানান, প্রতিটি বিদ্যালয়ের মাল্টিমিডিয়া প্রজেক্টরের মাধ্যমে আমরা আইসিটি শিক্ষকরা শ্রেণিকক্ষে প্রতিনিয়ত পাঠদান করে চলেছি। কিন্তু দুঃখের বিষয়- আমরা প্যার্টানভুক্ত শিক্ষক হওয়া সত্ত্বেও কোনো ধরনের পারিশ্রমিক বা বেতন-ভাতা ছাড়াই দীর্ঘদিন যাবত দায়িত্ব পালন করে চলেছি। এমপিওভুক্তির দাবিতে আমরা ২০১৫ সালের ৬ এপ্রিল এবং ১৮ মে প্রেসক্লাবের সামনে মানববন্ধন পালন করি। মানববন্ধন শেষে প্রধানমন্ত্রী, শিক্ষামন্ত্রী, শিক্ষাসচিব, মাউসির মহাপরিচালকের কাছে স্মারকলিপি প্রদান করি। গত বছরের ১৫ অক্টোবর মাউশি এক পরিপত্রের মাধ্যমে মাধ্যমিক স্তরের আইসিটি শিক্ষকদের এমপিওভুক্ত করার লক্ষ্যে তথ্য সংগ্রহ করে।

শিক্ষকরা আরো জানান, ২০১৫ সালের ১৫ ডিসেম্বর মাউশি এক হাজার ৩৫২ জন আইসিটি শিক্ষকের তালিকা প্রকাশ করলেও এদের এমপিওভুক্তির বিষয়ে এখনও কোনো সিদ্ধান্ত হয়নি। তাই এই অবস্থান ধর্মঘট থেকে তাদের দাবি হলো: যোগদানের তারিখ থেকে এমপিওভুক্তিকরণ; আইসিটি বিষয়ে যাদের কাগজ মাউসিতে জমা আছে তাদের মাউশি থেকে এমপিও দেয়া; মার্চ ২০১৬ তারিখের এমপিও বিলে এমপিও নিশ্চিত করা এবং সকল মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে আইসিটি পদটি শূণ্য ঘোষণা করা।

দাবি আদায়ে প্রধানমন্ত্রী ও তার তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিষয়ক প্রধান উপদেষ্টা সজীব ওয়াজেদ জয়ের হস্তক্ষেপ কামনা করে আইসিটি শিক্ষক সংগঠন এমপিওভুক্তির বিষয়ে কোনো ঘোষণা না আসা পর্যন্ত অবস্থান ধর্মঘট পালন করবে বলে জানান।

সংগঠনটির সভাপতি মো. আশিকুজ্জামান ও সাধারণ সম্পাদক এসএম শামীমুর রহমানের নেতৃত্বে এসময় অবস্থান ধর্মঘটে অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন- ওসমীমা রায়, মোস্তাফিজুর রহমান, এসএম সামীম রহমান ও জাহাঙ্গীর হোসেন প্রমুখ।

Leave a Reply

Your email address will not be published.