Saturday , December 3 2022
সর্বশেষ সংবাদ:
প্রচ্ছদ / জাতীয় / বিরোধী দল শক্তিশালী হলে অনেক কিছুই হতে পারতো : প্রধানমন্ত্রী

বিরোধী দল শক্তিশালী হলে অনেক কিছুই হতে পারতো : প্রধানমন্ত্রী

প্রতিবেদক : প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, দেশের বিরোধী রাজনৈতিক দলগুলো অনেক হুমকি দিচ্ছে। এটাই তো তাদের কাজ। তারা যদি শক্তিশালী হতো, তাহলে অনেক কিছুই হতে পারতো। গতকাল বিকেলে গণভবনে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি এ কথা বলেন। শেখ হাসিনা বলেন, অর্থনৈতিক সংকট মোকাবিলায় সরকারের পাশাপাশি বেসরকারি খাতকেও এগিয়ে আসতে হবে। তাহলে সামষ্টিক অর্থনীতির নির্ধারিত প্রবৃদ্ধি বাস্তবায়নে সক্ষম হবে বাংলাদেশ। আওয়ামী লীগের আসন্ন সম্মেলন প্রসঙ্গে করা এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, আওয়ামী লীগের একজন কাউন্সিলরও যদি আমাকে না চায়, তাহলে আমি থাকবো না। দীর্ঘদিন হয়ে গেছে। আমি অবশ্যই চাই আওয়ামী লীগে নতুন নেতৃত্ব আসুক। নেতৃত্ব কাউন্সিলররা ঠিক করেন। কাউন্সিলরদের সিদ্ধান্তটাই চূড়ান্ত। তিনি বলেন, ২০২১ সালে স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী। এই সুবর্ণজয়ন্তীতে আমরা উন্নয়নশীল দেশের মর্যাদায় পরিণত হয়েছি। এখন বিদায় নেওয়ার জন্য আমি প্রস্তুত।

রোহিঙ্গাদের প্রত্যাবাসন নিয়ে প্রধানমন্ত্রী বলেন, রাখাইন রাজ্যে রোহিঙ্গাদের জন্য নিরাপদ পরিবেশ তৈরিতে মিয়ানমারের ওপর চাপ সৃষ্টি রোহিঙ্গাদের প্রত্যাবাসন ত্বরান্বিত করার জন্য জাতিসংঘকে কার্যকর ও জোরাল ভূমিকা রাখার জন্য আহ্বান জানিয়েছি। প্রধানমন্ত্রী বলেন, জাতির পিতা একটি যুদ্ধবিধ্বস্ত দেশকে স্বল্প উন্নত দেশে পরিণত করেছেন। জাতিসংঘই বাংলাদেশকে স্বল্প উন্নত দেশ হিসেবে স্বীকৃতি দিয়েছিল। এরপর দেশে কি হয়েছে। গণতন্ত্র ছিল না দেশে মার্শাল ছিল। অনেক চড়াই উৎরাই পার করে আমরা দেশের গণতন্ত্র উদ্ধার করি। ২০০৮ সালের নির্বাচন থেকে শুরু করে আজ ২০২২ পর্যন্ত বাংলাদেশের ইতিহাসে আজকে এই প্রথম একটানা গণতান্ত্রিক ধারা অব্যাহত আছে।

যুক্তরাজ্য ও যুক্তরাষ্ট্রে ১৮ দিনের রাষ্ট্রীয় সফর শেষে গত সোমবার রাতে ঢাকায় ফেরেন শেখ হাসিনা। ১৫ সেপ্টেম্বর রাষ্ট্রীয় সফরে লন্ডনে যান তিনি। সেখানে তিনি রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথের অন্ত্যেষ্টিক্রিয়া এবং রাজা তৃতীয় চার্লসের সিংহাসনে আরোহণ অভ্যর্থনা অনুষ্ঠানে অংশ নেন। এরপর নিউইয়র্কের উদ্দেশে ১৯ সেপ্টেম্বর লন্ডন ত্যাগ করেন। যুক্তরাষ্ট্রে অবস্থানকালে শেখ হাসিনা ২৩ সেপ্টেম্বর জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদের (ইউএনজিএ) ৭৭তম অধিবেশনে ভাষণ দেন এবং এর ফাঁকে বিভিন্ন অনুষ্ঠানে অংশগ্রহণ করেন। স্থানীয় সময় ২৪ সেপ্টেম্বর সন্ধ্যায় সড়কপথে নিউইয়র্ক থেকে ওয়াশিংটন ডিসিতে যান প্রধানমন্ত্রী ও তার সফরসঙ্গীরা। এর আগে গত মাসে ভারত সফর নিয়ে গণভবনে অনুষ্ঠিত সংবাদ সম্মেলনে বক্তৃতা করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।